বিএনপি নেতার চাঁদাবাজী, প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা

অদৃশ্য শক্তির বলে বেপরোয়া হয়ে উঠেছে স্থানীয় প্রভাবশালী মহলের মনির নামের এক চাঁদাবাজ বলে অভিযোগ উঠেছে। মনিরুজ্জামান মনির বরিশাল মহানগর বিএনপির সহ সভাপতি বলে জানাগেছে। সাধারন মানুষ মনিরের কাছে জিন্মি দশায় দিন কাটাচ্ছে বলেও অীভযোগ করেছে স্থানীয় বাসিন্দারা। বেপরোয়া মনিরের লাগাম টেনে ধরতে ইতমধ্যে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার বরাবর সহযোগীতা চেয়ে আবেদন করেছে ভুক্তভোগীরা। এছাড়া বরিশাল কোতয়ালী মডেল থানায়ও অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। তবে কোতয়ালী পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ভুক্তভোগী ও মনিরের সাথে সমযোথা করে দিয়েছে বলে জানাগেছে। তবে এতে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিক আর্থিক ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে বলে জানিয়েছে অভিযোগকারী।

মনিরের চাঁদাবাজির বিরুদ্ধে বরিশাল নগরীর হাতেম কলেজ চৌমাথা এলাকার এম এ জলিল সড়কের বাসিন্দা ফেরদৌস অভিযোগটি এ অভিযোগ দায়ের করেন।অভিযোগসূত্রে জানা গেছে, হাতেম আলী কলেজের বিপরীতে মুসলিম পাড়ার বাসিন্দা মনির দীর্ঘদিন ধরে ফেরদৌসের ভাড়াটিয়া নুর এন্টার প্রাইজের কম্পিউটার কম্পোজের দোকানে করানোর অজুহাতে যায় এবং বিভিন্ন বাহানায় বিভিন্ন সময় চাঁদা দাবি করে এমনকি এর আগে কাজ করিয়ে টাকা নাদিয়ে চলে যায়।

টাকা চাইতে গেলে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিককে চর থাপ্পর মারলে প্রত্যক্ষদর্শীরা এসে তাকে উদ্ধার করে। শুধু তাই নয় এর কয়েকদিন আগে অপর ভাড়াটিয়া রামাদান স্টোর্স এর দোকানদার আশরাফুলকেও শারিরিকভাবে লাঞ্চিত করে কারণ তার দোকানে বসে সে প্রায় দুঘন্টা যাবত মোবাইলে উচ্চস্বরে অশ্রাব্য ভাষায় কথা বলছিলো এবং এতে দোকানের ব্যবসায় ব্যাঘাত ঘটার কারণে তাকে অন্যত্র যাওয়ার অনুরোধ করলে এ লাঞ্চনা পোহাতে হয়।

স্থানীয় সুত্রে জানাগেছে , মনির বরিশাল যুবদলের সাবেক নেতা হিসেবে নিজেকে পরিচয় দেয়। তার অশ্বালীন আচারনে ক্ষুদ্ধ স্থানীয় ব্যবসায়ীসহ এলাকাবাসী। স্থানীয়রা বলছে, মনিরের কাছে জিন্মি দশায় দিন কাটাতে হচ্ছে তাদের। তবে তারা প্রভাবশালী হওয়ার কারনে কেউ তার বিরুদ্ধে কথা বলার শাহস পাচ্ছেনা।

এদিকে বিএনপি’র পদ পদবী প্রাপ্ত নেতা দ্বারা স্থানীয় মানুষের ক্ষুদ্ধতা নিয়ে ইতমধ্যে আলোচনার সৃষ্টি হয়েছে। তবে স্থানীয়দের সাথে বিঐনপি নেতার এমন আচারন দলের উপর প্রভাব ফেলতে পারে বলে জানিয়েছে একটি সুত্র। তবে শেষ পর্যন্ত মনিরুজ্জামানের হাত থেকে এলাকাবাসী পরিত্রান পাবে কিনা তা নিয়েও সংসয় কাজ করছে। এর জন্য প্রশাসনের সু দৃষ্টি কামনা করেছে স্থানীয় বাসিন্দারা।

306 total views, 3 views today

সর্বশেষ সংবাদ