মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ২০

এক্সক্লুসিভ

টুইটার ফলোয়ার বেচাকেনার কারখানা

টুইটার ফলোয়ার বেচাকেনার কারখানা

ফেসবুক-টুইটারসহ সামাজিক গণমাধ্যমগুলোকে নিয়ে বিতর্কের শেষ নেই। বিশ্বের নানা প্রভাবশালী দেশের নির্বাচনে এর মাধ্যমে হস্তক্ষেপের অভিযোগ উঠেছে। তারপরও এসবের জনপ্রিয়তা কমেনি। বরং দিন দিন বেড়ে চলেছে। রাজনীতিবিদ থেকে শুরু করে খেলোয়াড়, সেলিব্রেটিরা তাদের জনপ্রিয়তার প্রমাণ দিতে ফলোয়ার (অনুসারী) ক্রয় করছেন। এরমধ্যে টুইটারও আছে। শনিবার 'দ্য ফলোয়ার ফ্যাক্টরি' (অনুসারীদের কারখানা) শিরোনামের এক অনুসন্ধানী প্রতিবেদনে এসব তথ্য তুলে ধরেছে দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস। এতে বলা হয়, ফলোয়ার বাড়াতে বিপুল পরিমাণ ভুয়া টুইটার অ্যাকাউন্ট পরিচালনা করে থাকে ডেভুমি নামের একটি প্রতিষ্ঠান। এসব অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে তারকাদের টুইটার অ্যাকাউন্টের ফলোয়ার বাড়ানোর পাশাপাশি তাদের টুইটের রিটুইট করা কিংবা লাইক দেওয়া হয়ে থাকে। টুইটারে ফলোয়ার, রিটুইট বাড়ানোর পাশাপাশি ইউটিউবে সাবস্ক্রাইবার, ভিডিও ভিউ, শেয়ার প্রভৃতি বাড়ানোর সেবাও দ
আইকিউতে আইনস্টাইন ও হকিংকে পেছনে ফেললো ১০ বছরের মাহি

আইকিউতে আইনস্টাইন ও হকিংকে পেছনে ফেললো ১০ বছরের মাহি

বয়স মাত্র ১০ বছর। এই বয়সেই মেনসা আইকিউ টেস্টে রেকর্ড স্কোর করলো যুক্তরাজ্যের মেহুল গার্গ। তার সর্বোচ্চ স্কোর ১৬২ পয়েন্ট। সবচেয়ে আশ্চর্যজনক হলো মেহুলের আইকিউ স্কোর বিখ্যাত দুই বিজ্ঞানী আলবার্ট আইনস্টাইন ও স্টিফেন হকিংয়ের চেয়েও দুই পয়েন্ট এগিয়ে।  মেনসা আইকিউ টেস্ট বিশ্বের অন্যতম আইকিউ টেস্টের একটি। ১৬২ পয়েন্ট করে সে এখন হাই আইকিউ টেস্টের সদস্য। ভারতীয় বংশোদ্ভূত মেহুলের ডাকনাম মাহি। এনডিটিভি। গতবছর মাহির ভাই ১৩ বছর বয়স্ক ধ্রুব গার্গও এই মেনসা আইকিউ টেস্টে অংশগ্রহণ করেছিল। তার স্কোরও ছিল ১৬২ পয়েন্ট। বড় ভাইয়ের পদাঙ্ক অনুসরণ করে মাহিও চেয়েছিল নিজের আইকিউ টেস্ট পরীক্ষা করতে। সময় নির্ধারিত এই টেস্টে প্রথম দিকে সে ঘাবড়ে গেলেও পরে নার্ভাসনেস কাটিয়ে উঠে। মা দিব্যা গার্গ বলেন, মাহি খুবই প্রতিযোগিতামূলক। বড় ভাইয়ের চেয়ে যে সে কম বুদ্ধিমান নয় তা প্রমাণই ছিল মাহির মূল উদ্দেশ্য। মাহি সাউদার্ন ইং
রাশিয়ার আকাশে রহস্যময় আলো!

রাশিয়ার আকাশে রহস্যময় আলো!

রাশিয়ার আকাশে রহস্যজনকভাবে হঠাৎ আলো চমকালো। যা নিয়ে রীতিমত জল্পনা শুরু হয়েছে। কেউ কেউ আশঙ্কা করেন, যুক্তরাষ্ট্র হয়তো মিসাইল ফেলেছে উত্তর কোরিয়াকে লক্ষ্য করে। আবার কেউ কেউ বলেন, ইউএফও ঘুরে গেল পৃথিবীর উপর দিয়ে! রাশিয়ার এক বিস্তীর্ণ অঞ্চল সম্প্রতি এই অভিজ্ঞতার সাক্ষী হয়ে রইল। তবে এর সূত্রপাত কয়েক হাজার মাইল দূরে বলে অনুমান করা হচ্ছে। রাশিয়ার বিজ্ঞানীরা জানিয়েছে, রাশিয়া কোন মিসাইল টেস্ট করেনি কিংবা কোন উল্কাপাতের ঘটনাও ঘটেনি। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, কীভাবে কয়েক মুহূর্তের জন্য আলোয় একেবারে সাদা হয়ে যাচ্ছে রাতের অন্ধকার। এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, দিনের আলোর থেকেও উজ্জ্বল ছিল সেই আলো। সঙ্গে বিস্ফোরণের মতো আওয়াজও হয়। এমনকি ভূমিও কেঁপে ওঠে সেই আওয়াজে। প্রাথমিকভাবে এটা কোন সামরিক অস্ত্র বলেই মনে করা হয়। অন্য এক প্রত্যক্ষদর্শী ডেনিস রোজেনফিল্ড জানান, মহাকাশে কোন গ্রহাণুতে বিস্ফোরণ হয়েছে। যা ন
নিজের বাল্য বিয়ে ঠেকালো বরিশালে হাফসা

নিজের বাল্য বিয়ে ঠেকালো বরিশালে হাফসা

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল মহাবাজ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণির ছাত্রী মোসাঃ হাফসা (১৬) । বাবার নাম মোঃ ওমর ফারুখ। চরবাড়িয়া ইউনিয়নের চর আবদানী এলাকায় বসবাস। গতকাল সোমবার পিরোজপুর জেলার সরূপকাঠী উপজেলার জনৈক আনিছুর রহমানের সাথে বিয়ে ঠিক হয়। পরিবারের সবাইকে হাফসা নিজের পড়ালেখার কথা বার বার জানালেও কেউ গায়ে মাখেনি। পরিবারের ইচ্ছায় সোমবার তার বিয়ের সব আয়োজন করা হয়। এক পর্যায়ে নিজেকে রক্ষায় হাফসা বেশ সাহসিকতার পরিচয় দেয়। সমাজ সেবা অধিদপ্তরের প্রবেশন অফিসারের মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে সে কল দিয়ে জানায় যে, তাকে তার ইচ্ছের বিরূদ্ধে জোড় পূর্বক এই অপ্রাপ্ত বয়সে বিয়ে দেয়া হচ্ছে। পাশাপাশি সে আরো উচ্চ শিক্ষায় নিজেকে শিক্ষিত করে স্বাবলম্বী হতে চায় মর্মে জানায়। সংবাদ পেয়ে উপজেলা প্রশাসন, সমাজ সেবা অধিদপ্তর, কাউনিয়া থানা পুলিশ তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নেয়। বিয়ে পন্ড করে ঘটনাস্থল থেকে উভয় পক্ষের দুইজনকে
সংসার আর নামাজ-রোজা করব: অপু

সংসার আর নামাজ-রোজা করব: অপু

শনিবার রাতে কলকাতা থেকে ফিরেছেন অপু বিশ্বাস। ফিরেই গণমাধ্যমকে জানালেন তিনি আর চলচ্চিত্রে অভিনয় করবেন না। কারণ হিসেবে চিকিৎসকের পরামর্শের কথা জনালেন এই অভিনেত্রী। তিনি জানান, এখন থেকে নামাজ-রোজা নিয়মিত আদায় করবেন, শিগগিরই ওমরাহ হজ পালন করতে যাবেন এবং আগামী বছর হজে যাবেন। অপুর কাছে প্রশ্ন ছিল কী এমন সমস্যা হয়েছিল যে, চিকিৎসা করাতে দ্রুত তাকে দেশের বাইরে যেতে হলো? এর জবাবে বিস্তারিত জানান তিনি। তার কথায় গত বৃহস্পতিবার রাত প্রায় তিনটার দিকে বাচ্চাকে ফিডার খাওয়ানোর পর তিনি ওয়াশরুমে যান। সেখানে বাথটবের সঙ্গে পা আটকে উল্টে পড়ে গিয়ে পেটে মারাত্মক আঘাত পান। বাথটবের কোনা গিয়ে লাগে সিজারের স্থানে। সঙ্গে প্রচণ্ড ব্যথা হতে থাকে পেটে এবং প্রস্রাবের সঙ্গে রক্তপাত শুরু হয়। শ্বাস-প্রশ্বাস নিতেও কষ্ট হচ্ছিল। পেটের ব্যথা ক্রমেই বাড়তে থাকায় ভোর রাত ৪টার দিকে অপু তার ড্রাইভার সাইফকে ফোন দিয়ে ডেকে আনেন এবং এ

সর্বশেষ সংবাদ